‘১৫ শতাংশে আতঙ্ক, ভ্যাট রাখতে হবে ১২ শতাংশ’

সারাবাংলা ডেস্ক:
Published:  2017-06-14 15:05:02

‘১৫ শতাংশে আতঙ্ক, ভ্যাট রাখতে হবে ১২ শতাংশ’

 

প্রস্তাবিত বাজেটে ভ্যাট আইনে ১৫ শতাংশ ভ্যাট রাখায় ব্যবসায়ী ও ভোক্তা উভয়ের মধ্যেই আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে বলে অভিযোগ ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস ফোরাম অব বাংলাদেশের (আইবিএফবি)। আর এ আতঙ্ক দূর করতে বাজেটে ৩ শতাংশ ভ্যাট কমিয়ে ১২ শতাংশ রাখার দাবি জানিয়েছে সংগঠনটি।

বুধবার জাতীয় প্রেসক্লাবে আয়োজিত ‘জাতীয় বাজেট প্রতিক্রিয়া ২০১৭-১৮’ শীর্ষক এক সংবাদ সম্মেলন থেকে এই দাবি উত্থাপন করা হয়।

সংবাদ সম্মেলনে আইবিএফবি’র সভাপতি ও রানার গ্রুপের চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান খান বলেন, এবারের প্রস্তাবিত বাজেটে ভ্যাট আইনে ১৫ শতাংশ ভ্যাট রাখা হয়েছে। এতে ব্যবসায়ী ও ভোক্তা উভয়ের মধ্যেই আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে। ধারণা করা হচ্ছে নতুন প্রস্তাবিত ভ্যাট আইনে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দামে হেরফের হবে। যা মূল্যস্ফীতি বাড়াতে সাহায্য করবে।

দাবির পক্ষে যুক্তি দিয়ে হাফিজুর রহমান বলেন, দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোতে ভ্যাটের গড় হার ১৩ দশমিক ৫ শতাংশ। এশিয়ার নিম্ন আয়ের দেশগুলোতে এই হার ১১ দশমিক ৮ শতাংশ। এছাড়াও বিশ্বের ১৯০টি দেশের গড় ভ্যাটের হার ১৩ দশমিক ৮ শতাংশ। যা আমাদের বাজেটের প্রস্তাবিত ভ্যাট থেকে কম।

তিনি বলেন, এশিয়ার দেশগুলোর সঙ্গে মিল রেখে ৩ শতাংশ ভ্যাট কমিয়ে ১২ শতাংশ রাখতে হবে। এতে সরকারের যে ২৪ হাজার কোটি টাকার রাজস্ব ঘাটতি পড়বে তা সমন্বয়ের জন্য সিগারেট, ব্যাংক, বিমা ও মোবাইল কোম্পানির ওপর করের হার বাড়ানোর পরামর্শ দেন আইবিএফবি সভাপতি।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন, আইবিএফবি পরিচালক ও জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যান ড. মোহাম্মদ আব্দুল মজিদ, প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী প্রমুখ।

লাইভ ক্রিকেট স্কোর